সোমবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২১, ০১:০৯ অপরাহ্ন
মুজিব বর্ষ
শিরোনাম :
সেনাবাহিনীর এমওডিসিতে সৈনিক পদে চাকরি ভূমিহীন ও গৃহহীনদের মাঝে নির্মাণাধীন ঘর পরিদর্শন করলেন, এমপি টগর মানবিকতার বেশে দূর্নীতি তে সিএসসি সভাপতি জিসান বরিশাল বানারীপাড়ায় ছাত্রলীগ নেতা উজ্জ্বলের মনোনয়নপত্র দাখিল বাগেরহাট পৌরসভা নির্বাচনে ৩৬ প্রার্থীর মনোনয়ন পত্র জমা বানারীপাড়ায় নৌকার প্রার্থী এ্যাড. সুভাষ চন্দ্র শীলের মনোনয়নপত্র দাখিল চুয়াডাঙ্গা এসপির মধ্যস্থতায় নুরনাহার বেগম ফিরে পেল তার সুখের সংসার, হোসেন, সাইদ ও জিসান পেল পিতৃ স্নেহ। চুয়াডাঙ্গা পুলিশ লাইনে মাস্টার প্যারেড, মাসিক কল্যাণ সভা ও অপরাধ পর্যালোচনা সভা অনুষ্ঠিত। কাউখালীতে অবসরপ্রাপ্ত ব্যাংক কর্মকর্তা শহীদুল ইসলামের উপর হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন নওগাঁর আত্রাই উপজেলায় ৭৫ জন ভূমিহীনদের মাঝে ঘরের দলিল বিতরণ

লক্ষ্মীপুরে ‘কৃষকের অ্যাপস্’ এর আমন ধান সংগ্রহ শুরু

মোঃ হুুুুমায়ূন কবির, লক্ষ্মীপুর জেলা প্রতিনিধিঃ
  • Update Time : মঙ্গলবার, ২২ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ৫৫ Time View
লক্ষ্মীপুরে প্রথম বারের মত অনলাইন ‘কৃষকের অ্যাপস্’ এর মাধ্যমে অভ্যন্তরীণ আমন ধান সংগ্রহ কার্যক্রম শুরু হয়েছে। এ বছর অ্যাপসে’র মাধ্যমে সদর উপজেলার নিবন্ধিত ১ হাজার ২৩২ জন কৃষকের কাজ থেকে ৩৫৬ মেট্ট্রিক টন ধান সংগ্রহ করা হবে। মঙ্গলবার দুপুরে সদর উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রণ কার্যালয়ে ফিতা কেটে এর কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন, লক্ষ্মীপুরের জেলা প্রশাসক অঞ্জন চন্দ্র পাল। এ ধান সংগ্রহের কার্যক্রম চলবে  বছরের ২৮ ফেব্রুয়ারী পর্যন্ত।
সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাসুম এর সভাপতিত্বে এসময় উপস্থিত ছিলেন, জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তা মংখ্যাই, ধান সংগ্রহ কমিটির সদস্য ও সাবেক উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান হাফিজ উল্যাহসহ স্থানীয় কয়েকজন কৃষক।
জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রণ কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, লক্ষ্মীপুরে এবার অনলাইন মাধ্যম কৃষকের অ্যাপস্ এর মাধ্যমে সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে ধান সংগ্রহ কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে। লক্ষ্মীপুর পৌরসভায় ১০৩ জন কৃষকসহ ২১টি ইউনিয়নের ১ হাজার ২৩২ জন প্রান্তিক কৃষক এ অ্যাপস্ এ নিবন্ধন করেন। এতে (প্রতি কেজি ২৬ টাকা) মণ প্রতি ১ হাজার ৪০ টাকা হারে ৩৫৬ মেট্রিক টন ধান সংগ্রহ করা হবে। প্রতি কৃষক সর্বনিম্ন ১২০ কেজি থেকে শুরু করে ৬ মেট্রিক টন পর্যন্ত আমন ধান খাদ্য নিয়ন্ত্রণ বিভাগের কাছে বিক্রি করতে পারবেন। এর আগে গত ২০ নভেম্বর পর্যন্ত কৃষি বিভাগ ও খাদ্য নিয়ন্ত্রণ বিভাগের পক্ষ থেকে যৌথভাবে কৃষকের অ্যাপস্ এ লক্ষ্মীপুরের প্রান্তিক কৃষকদের নিবন্ধণ কার্যক্রম ও সচেতনতামূলক প্রচার-প্রচারণা করা হয়।
জেলা প্রশাসক অঞ্জন চন্দ্র পাল জানান, কৃষকই বাংলাদেশের জিডিবিতে অবদান রাখছে। তাই কৃষকের ন্যায্য দাম মিটিয়ে দিতে সরকার এ অ্যাপস ভিত্তিক ধান সংগ্রহ কার্যক্রম শুরু করেছে। এতে প্রকৃত কৃষকই সুবিধা পাবেন। ধান সংগ্রহের সাথে সাথেই অ্যাপস এর মাধ্যমে কৃষকের ব্যাংক একাউন্টে ন্যায্য দাম পাঠিয়ে দেয়া হবে বলেও জানান তিনি।

নিউজটি শেয়ার করুন

posted by: মোঃ জহিরুল ইসলাম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
Copyright © by somoy songjog 24 | Developed by Md. Rajib