সোমবার, ৩০ নভেম্বর ২০২০, ০৭:৩৮ পূর্বাহ্ন
মুজিব বর্ষ
শিরোনাম :
গোপালগঞ্জের মধুমতি নদীতে অনুষ্ঠিত হয়ে গেল বঙ্গবন্ধু ১৭তম জাতীয় দূরপাল্লা সাঁতার প্রতিযোগিতা জয়পুরহাটে বিএনপির দুই নেতার সুস্থতা কামনায় দোয়া মাহফিল রংপুরে নিষিদ্ধ পলিথিন সংরক্ষণ ও বিক্রির অপরাধে আটটি প্রতিষ্ঠানকে ৪ লাখ টাকা জরিমানা অভিনব কায়দায় চার লাখ ৪০ হাজার ৩২৫ টাকা চুরি রাজবাড়ির বালিয়াকান্দিতে বাল্য বিবাহের দায়ে কনের বাবাকে জরিমানা রাজশাহী বাগমারায় এক গৃহবধূ কে যৌতুকের জন্য নির্যাতন থানায় মামলা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে বাংলাদেশকে কাঙ্খিত লক্ষে এগিয়ে নিতে হবে, আমির হোসেন আমু রংপুরে অনুষ্ঠিত হলো শিখন বিনিময় কর্মশালা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে স্মারকলিপি রংপুরে ইন্ডিপেনডেন্ট টিভির ক্যামেরা পারসনের ওপর হামলা সাংবাদিকদের অবস্থান ধর্মঘট কাউখালীতে ৫০ হাজার মিটার অবৈধ কারেন্ট জাল জব্দ

তালতলীতে নৌকার প্রচার গাড়িতে হামলা করে স্বতন্ত্র প্রার্থীর ঘোড়া সমর্থকরা।

স্টাফ রিপোর্টারঃ
  • Update Time : রবিবার, ১৮ অক্টোবর, ২০২০
  • ৫৬ Time View
বরগুনার তালতলীতে কড়ইবাড়িয়া ইউপি উপ নির্বাচনে আজ প্রচারণার শেষ দিন। এই শেষ সময় আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রার্থীর মাইক ভাঙচুর ও গাড়িতে থাকা প্রচারকারী জাহিদ (২৬)নামের একজন কে পিটিয়ে আহত করেন স্বতন্ত্র প্রার্থীর ঘোড়া সমর্থকরা।
রবিবার(১৮ অক্টোবর)সন্ধা সাড়ে টার দিকে স্বতন্ত্র প্রার্থীর বাড়ির সামনের সড়ক দিয়ে নৌকার প্রচার মাইক চালানোর সময়  এ ঘটনা ঘটে।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার কড়ইবাড়িয়া ইপি উপ নির্বাচনের শেষ প্রচার-প্রচারণা করেন  আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রার্থী নূর মোহাম্মদ মাস্টার । প্রতিদিনের মতোই শেষ দিনেও আটো – বোরাক করে প্রচার মাইক ও প্রচারকারী জাহিদ স্বতন্ত্র প্রার্থী মানসুরুল আলম এর বাড়ির সামনের সড়ক দিয়ে যাচ্ছিলেন । এমন সময়  সন্ধা সাড়ে ৭টার দিকে দিকে স্বতন্ত্র প্রার্থী সমর্থকরা নৌকার প্রচারণার মাইক ভাঙচুর ও প্রচারকারী জাহিদকে বেধড়ক মারধর। পরে আহত জাহিদ কে উদ্ধার করে তালতলী হাসপাতাল নেওয়া হয় । পরে তালতলী থানায় গিয়ে লিখিত অভিযোগ দেওয়া হয়। এ ঘটনায় এলাকায় আতঙ্ক বিরাজ করছে।
আহত জাহিদ বলেন স্বতন্ত্র প্রার্থী মানসুরুল আলম এর বাড়ির সামনে দিয়ে নৌকার শেষ প্রচার করে আসছিলাম।  এর ভিতরেই তার বাড়ির সামনে বসে  ১০ থেকে ১২ জন পিছন থেকে অতর্কিত হামলা চালিয়ে মাইক ভাঙচুর করেন ও আমাকে মারধর করেন। এতে আমার ছোট একটি ফোন ভেঙে যায় ও বড় স্মার্টফোনটি তারা ছিনিয়ে নিয়ে চলে যায়।
আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রার্থীর পুত্রবধূ মনিকা নাজনীন বলেন এই মানসুরুল আলম অতীতের নির্বাচনগুলোতে বিএনপি’র মনোনীত প্রার্থী ছিলেন। পরে স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়ে এই নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেন। তবে তিনি বিএনপি-জামাতের সন্ত্রাসের রাজনীতি ছাড়তে পারেননি। সাধারণ ভোটারা শান্তিপূর্ণ নির্বাচন চায়। তিনি আরও বলেন স্বতন্ত্র প্রার্থী স্থানীয় সাবেক চেয়ারম্যানের ছেলে হত্যার প্রধান আসামী। এ ছাড়াও এলাকায় সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডে জড়িত।
এবিষয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী মানসুরুল আলম বলেন,এগুলো নৌকার প্রার্থীর বানানো কথা। এধরনের কোনো ঘটনা আমাদের সাথে ঘটেনি। তারা বানিয়ে বলেন এগুলো।
এবিষয়ে তালতলীর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কামরুজ্জামান মিয়া বলেন,ঘটনা শুনে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। আমি থানার বাহিরে আছি অভিযোগ দিতে বলছি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া।

নিউজটি শেয়ার করুন

posted by: মোঃ জহিরুল ইসলাম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
Copyright © by somoy songjog 24 | Developed by Md. Rajib